শিরোনাম

মাস্টার সংকটে চার মাস বন্ধ শ্রীনিধি স্টেশন

মাস্টার সংকটে চার মাস বন্ধ শ্রীনিধি স্টেশন

নিউজ ডেস্ক:
টঙ্গী-ভৈরব বাজার সেকশনের শ্রীনিধি রেলওয়ে স্টেশনটি মাস্টার সংকটে ৩-৪ মাস ধরে বন্ধ রয়েছে। যাত্রীরা ট্রেনের অপেক্ষায় ঘণ্টার পর ঘণ্টা বসে থাকেন। যাত্রীদের ট্রেনের বিষয়ে বলার কেউ নেই। স্টেশন অফিস কক্ষ, ওয়েটিং রুম সার্বক্ষণিক তালাবদ্ধ থাকে। স্টেশনটি নোংরা হয়ে পরিত্যক্ত অবস্থায় আছে।

জানা গেছে, কর্ণফুলী ও ঈশা খাঁ ট্রেন দুইটি দিনে দুই মিনিটের জন্য এসে স্টেশনে দাঁড়ায়। এ কারণে শ্রীনিধি স্টেশনের যাত্রীদের সীমাহীন দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। কার্যক্রম বন্ধ থাকায় শ্রীনিধির স্টেশন মাস্টার আক্তার হোসেনকে জিনারদী রেলওয়ে স্টেশনে নিয়োগ করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে শ্রীনিধি এলাকার বাসিন্দা মুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক শিক্ষা অফিসার চিত্ত রঞ্জন বিশ্বাস বলেন, আমরা দীর্ঘদিন ধরে সীমাহীন অসুবিধায় আছি। সারাদিনে দুইটি ট্রেন দুই মিনিটের জন্য এসে দাঁড়ায়। অনেকে না জেনে এসে ঘণ্টার পর ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকেন। আগে প্রতিদিন বহু যাত্রী শ্রীনিধি স্টেশন থেকে ঢাকাসহ বিভিন্ন স্থানে যাতায়াত করতেন।

তিনি আরো বলেন, স্টেশনের টয়লেট তালাবদ্ধ থাকে। বৃদ্ধ ও নারী যাত্রীদের বিশ্রাম এবং পয়ঃপ্রণালির অবস্থা বেহাল।

শ্রীনিধি রেলওয়ে স্টেশনের বেহাল দশার ব্যাপারে নরসিংদীর রেলওয়ে স্টেশনের কর্তব্যরত মাস্টার মো. আবু নাঈম জানান, বি শ্রেণির এই স্টেশনটি মাস্টার সংকটের কারণে গত প্রায় ৩-৪ মাস ধরে বন্ধ রয়েছে। রেল কর্তৃপক্ষ শ্রীনিধি রেলওয়ে স্টেশনে সংশ্লিষ্ট চালকদের মাত্র দুই মিনিট করে ট্রেন বিরতির জন্য নির্দেশ প্রদান করেছে। এখন শ্রীনিধি রেলওয়ে স্টেশনে লোকাল ট্রেন ঈশাখা এক্সপ্রেস এবং কর্ণফুলী এক্সপ্রেস যাত্রাবিরতি করে।

সুত্র:ইত্তেফাক, ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৯


About the Author

RailNewsBD
রেল নিউজ বিডি (Rail News BD) বাংলাদেশের রেলের উপর একটি তথ্য ও সংবাদ ভিত্তিক ওয়েব পোর্টাল।