ছয় মিনিটেই ট্রেন পরিষ্কার, সাশ্রয় এক লাখ লিটার পানি

ছয় মিনিটেই ট্রেন পরিষ্কার, সাশ্রয় এক লাখ লিটার পানি

নিউজ ডেস্ক:

রেলে আধুনিকতার ছোঁয়া লেগেছে। দেশে এই প্রথম কমলাপুর ও রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশন সংলগ্ন দুটি ‘স্বয়ক্রিয় ওয়াশিং প্ল্যান্ট’ উদ্বোধন করা হয়েছে। এতে মাত্র ১০-১৫ মিনিটের মধ্যে ৩৫ থেকে ৪০টি যাত্রীবাহী কোচ পরিষ্কার করা যাবে। এতদিন ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে মাত্র ১টি গাড়ি (১০ থেকে ১৪ কোচ) আড়াই থেকে তিন ঘণ্টা সময় লাগত। এখন একটি গাড়ি মাত্র ৬ মিনিটের মধ্যেই পরিষ্কার করা সম্ভব হবে। ২৯ জন শ্রমিকের স্থলে মাত্র ১ জন শ্রমিক দ্বারাই এটি নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। প্রতিদিন কমপক্ষে এক লাখ লিটার পানি সাশ্রয় হবে বলে জানান রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ।

কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন ওয়াশ ফিটে সোমবার দুপুরে প্রথম প্ল্যান্ট উদ্বোধন করেন রেলপথমন্ত্রী মো. নুরুল ইসলাম সুজন। উদ্বোধনের আগে রেলওয়ের উন্নয়ন বিষয়ক একটি আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। রেলপথ সচিব সেলিম রেজার সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন রেলপথমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন। বিশেষ অতিথি ছিলেন রেলপথ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি সংসদ সদস্য এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী, সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুল, শফিকুল আজম খান, মো. সাইফুজ্জামান, এইচএম ইব্রাহিম, নাছিমুল আলম চৌধুরী, রেলওয়ে মহাপরিচালক ডিএন মজুমদার।

রেলপথ মন্ত্রী বলেন, ধীরে ধীরে আরও এমন প্ল্যান্ট স্থাপন করা হবে। রেলবহরে অত্যাধুনিক কোচ-ইঞ্জিন আসছে। এসব কোচ স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতি ছাড়া পরিষ্কার করা সম্ভব নয়। কয়েক বছরের মধ্যে প্রায় ১৫০০ নতুন কোচ রেল বহরে যুক্ত হচ্ছে। এসব কোচ-ট্রেন অত্যাধুনিক প্ল্যান্টে কয়েক মিনিটের মধ্যেই পরিষ্কার করা যাবে।

রেলওয়ে অতিরিক্ত মহাপরিচালক (আরএস) মঞ্জুর-উল-আলম চৌধুরী জানান, এ প্ল্যান্টের মাধ্যমে প্রতিটি বগির উভয় পাশ, ছাদ ও আন্ডার গিয়ার সুচারুভাবে পরিষ্কার করা হবে। ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে যে পরিমাণ পানি খরচ হতো, তার চেয়ে ৯০ শতাংশ কম খরচ হবে। ব্যবহৃত পানি রিফাইনিং করে সেই পানি পুনরায় ট্রেন পরিষ্কারের কাজে ব্যবহার করা হবে। ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে হাত ও ব্রাশ দিয়ে ট্রেন ঠিকমতো পরিষ্কার করা সম্ভব হতো না, গুরুত্বপূর্ণ যন্ত্রাংশে মরিচা পড়তো। এ থেকে উত্তরণের জন্যই এটি স্থাপনের সিদ্ধান্ত নেয় রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ।

রাজশাহী ব্যুরো জানিয়েছে, রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন সোমবার ফলক উন্মোচন ও ফিতা কেটে অটোমেটিক ট্রেন ওয়াশিং প্ল্যান্টের উদ্বোধন করেন।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ রেলওয়ে (পশ্চিম) এর মহাব্যবস্থাপক মিহির কান্তি গুহ। স্বাগত বক্তব্য দেন চিফ মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার কুদরত ই খুদা। বক্তব্য দেন চিফ অপারেটিভ সুপারিনটেনডেন্ট শহীদুল ইসলাম, বিভাগীয় মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ার (পাকশী) মমতাজুল ইসলাম, বিভাগীয় রেল ব্যবস্থাপক (পাকশী) মো. শাহীদুল ইসলাম। বক্তব্য দেন রেলওয়ে শ্রমিক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির কার্যকরী সভাপতি ওয়ালী খান, অতিরিক্ত সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আক্তার আলী, রাজশাহী রেলওয়ে শ্রমিক লীগ ওপেন লাইন শাখার সভাপতি জহরুল ইসলাম, আরবিআর শাখার সভাপতি মোতাহার হোসেন প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ রেলওয়ে পশ্চিমাঞ্চলের বিভাগীয় কর্মকর্তারা, রাজশাহী সিটি করপোরেশনের ১৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর তৌহিদুল হক সুমনসহ রেলওয়ে শ্রমিক লীগের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র:যুগান্তর, ০৯ নভেম্বর ২০২১

facebook sharing button

About the Author

RailNewsBD
রেল নিউজ বিডি (Rail News BD) বাংলাদেশের রেলের উপর একটি তথ্য ও সংবাদ ভিত্তিক ওয়েব পোর্টাল।