রেলের ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনা হবে: রেলমন্ত্রী

রেলের ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনা হবে: রেলমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক:
‘একসময় রেলের অনেক কদর ছিল। কিন্তু অন্য সেক্টর থেকে রেলওয়ে চূড়ান্ত অবহেলার শিকার হয়েছিল। তবে রেলের ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনা হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রেলের ঐতিহ্যকে ফিরিয়ে আনতে ২০৩০ সাল পর্যন্ত রেলওয়ের গুরুত্বপূর্ণ পরিকল্পনা হাতে নিয়েছেন। দেশের অভ্যন্তরীণ রেল যোগাযোগ ব্যবস্থাকে শক্তিশালী করা হচ্ছে। ঢাকা-চট্টগ্রাম রুটে হাইস্পিড ট্রেন প্রকল্পটি চালু হলে ৫৭ মিনিটে ঢাকা থেকে চট্টগ্রামে যাতায়াত করা যাবে।’

গতকাল রোববার চট্টগ্রাম সিআরবি জিএম কনফারেন্স রুমে বিভিন্ন বিভাগের কর্মকর্তা ও রেলওয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন। এ সময় রেলের মহাপরিচালক রফিকুল আলমসহ রেলওয়ের পূর্ব ও পশ্চিমাঞ্চলের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

তিনি বলেন, ‘দোহাজারী-কক্সবাজার-গুনদুম রেললাইন প্রকল্পটি ট্রান্স এশিয়ার সঙ্গে যুক্ত হয়ে চীন, মালয়েশিয়া ও থাইল্যান্ড পর্যন্ত সম্প্রসারণ করা হবে। এছাড়া স্বপ্নের পদ্মা সেতুর সঙ্গে রেলের সংযোগ হচ্ছে। এতে রেলের উন্নয়নের গতি বৃদ্ধি পাচ্ছে। রেল সাধারণ জনগণের বাহন, এটাকে উন্নয়ন করার জন্য আলাদা মন্ত্রণালয় করেছেন প্রধানমন্ত্রী। এরপরও কিছু মানুষের কারণে জনগণ রেলের প্রতি আস্থা হারাচ্ছে, তাদের খুজে বের করা হবে। একই সঙ্গে রেলকে উন্নয়ন করে জিডিপির হার বৃদ্ধি করা হবে।’

তিনি বলেন, ‘ভারত-পকিস্তান যুদ্ধের সময় যে রেল লাইনগুলো ধ্বংস করা হয়েছে, তা পুনরায় চালু করার পরিকল্পনা চলছে। খুব অল্প সময়ের মধ্যে রেলের ঐতিহ্য ফিরে আসবে। তার জন্য দরকার সবার আন্তরিকতা, সততা ও কর্মদক্ষতা। এছাড়া বেদখল জায়গা উদ্ধার করা হবে। সমস্যাকে সামনে নিয়ে সমাধান করব। প্রধানমন্ত্রী দেশের উন্নয়নে কাজ করছেন, কেউ যদি উন্নয়ন কাজে বাধা হয়ে দাঁড়ায় তাহলে তাদের প্রতিহত করা হবে।’

সুত্র:শেয়ার বিজ, জানুয়ারি ২৮, ২০১৯


About the Author

RailNewsBD
রেল নিউজ বিডি (Rail News BD) বাংলাদেশের রেলের উপর একটি তথ্য ও সংবাদ ভিত্তিক ওয়েব পোর্টাল।