শিরোনাম

ট্রেনের নতুন টিকেটিং সিস্টেমে টিকিট বিক্রির প্রথম দিনেই ভোগান্তি


।। নিউজ ডেস্ক ।।
অনলাইনে ট্রেনের নতুন টিকেটিং সিস্টেমের প্রথমদিনেই বিড়ম্বনায় পড়তে হয়েছে যাত্রীদের। শনিবার (২৬ মার্চ) সকাল আটটা থেকে কাউন্টারের পাশাপাশি অনলাইনে টিকেট বিক্রি শুরু হয়, তবে বিক্রির শুরুতেই সাইবার আক্রমণে পড়ে রেলওয়ের সার্ভার। এতে টিকেট পেতে ভোগান্তিতে পড়ছেন যাত্রীরা। টিকেটের পোর্টালে প্রবেশ করা যাচ্ছে না।

শনিবার সকাল থেকেই ওটিপি, ওয়েবসাইট লোডিং ও সার্ভার সমস্যার কারণে অচলাবস্থা তৈরি হয় রেলের টিকিটিং সিস্টেমে।

ই-টিকিটিংয়ের নতুন সার্ভিস প্রোভাইডার সহজ লিমিটেডের দাবি, তারা “সাইবার আক্রমণের” শিকার। যদিও

সাইবার আক্রমণের কথা তাদের জানা নেই বলে জানিয়েছে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। তারা বলছেন টিকিট কাটার চাপে এই সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে।

রাত ৮টা ৩০ মিনিটে এ প্রতিবেদন লেখার সময়ও ট্রেনের টিকিট কাটার ওয়েবসাইটটি কাজ করছিল না।

শুরুর দিনেই অচলাবস্থা নিয়ে সহজ’র জনসংযোগ বিভাগের ব্যবস্থাপক ফারহাত আহমেদ অনলাইন সংবাদ মাধ্যম বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “আমাদের ইঞ্জিনিয়াররা কাজ করছেন। দ্রুত ই-টিকেটিং সিস্টেমটা সচল করতে আমাদের সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হচ্ছে। শুধু অনলাইনে এই অচলাবস্থাটা তৈরি হয়েছে। কিন্তু বিভিন্ন স্টেশনে কম্পিউটারাইজ প্রোগ্রামে কোনো সমস্যা হয়নি।”

তার দাবি, “সাইবার হামলার” কারণে এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।

যদিও এ প্রসঙ্গে রেলওয়ের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপারেশন) সরদার সাহাদাত আলী বলেন, “সাইবার হামলার কথা শুনিনি। সকালে শুনেছি কিছু সমস্যা হয়েছে। আমাদের জানানো হয়েছে, প্রায় দুই লাখ মানুষ এক সাথে টিকেট কাটতে ঢোকায় ক্যাপাসিটির সমস্যা হয়েছে। তাদের (সহজ) বলা হয়েছে, তারা কাজ করছে।”

রেলওয়ের উপপরিচালক (টিসি) নাহিদ হাসান খাঁন বলেন, “নতুন সিস্টেমে অনলাইন টিকেটিং সকাল ৮টা থেকেই চালু হয়েছে। কেউই পায়নি এমনটা নয়; তবে অনেকেই পায়নি এটা ঠিক। আগের সিস্টেমে প্রায় ৪০ লাখের উপর রেজিষ্ট্রেশন করা ছিল। তাদের আবার নতুনভাবে রেজিষ্ট্রেশন করতে হচ্ছে, তাই সার্ভারে চাপটা একটু বেশি পড়ে গেছে। মাঝে মাঝেই সার্ভার ডাউন হচ্ছে, আবার কিছুক্ষণ পর পর ঠিকও হয়ে যাচ্ছে। আর আজকে প্রথমদিন, একটু সমস্যা হবেই। তার মানে এই নয় যে টিকেটিং বন্ধ আছে।”

প্রসঙ্গত, এর আগে রেলওয়ের ই-টিকিটিং সেবা দিয়ে আসছিল আরেক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান সিএনএস।

অনলাইনে বাস, লঞ্চ টিকেট বিক্রির অভিজ্ঞতা থাকা সহজ আরও দুই কোম্পানিকে সঙ্গে নিয়ে বাংলাদেশ রেলওয়ের সঙ্গে আগামী পাঁচ বছরের জন্য ট্রেনের টিকেট ব্যবস্থাপনার জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছে।

এর আগে সিএনএসের নিজস্ব সাইটের মাধ্যমে রেলের টিকিট বিক্রি হলেও এবার তা রেলওয়ের নিজস্ব সাইট (www.eticket.railway.gov.bd) থেকে টিকিট মিলবে।

সূত্রঃ বাংলাট্রিবিউন


About the Author

RailNewsBD
রেল নিউজ বিডি (Rail News BD) বাংলাদেশের রেলের উপর একটি তথ্য ও সংবাদ ভিত্তিক ওয়েব পোর্টাল।